Primary TET Exam – টেট পরীক্ষা প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে জটিলতা। নিয়োগ নিয়ে চরম অনিশ্চয়তা। পর্ষদ কি জানাচ্ছে?

অনেক বছর পর গত বছর ডিসেম্বরে প্রাথমিক টেট (Primary TET Exam) হয়েছিল। আর সেই টেট নিয়ে আশায় ছিলেন পরীক্ষার্থীরা। তবে এখনও সেই টেট নিয়োগ হয়নি তারমধ্যে নতুন করে এই বছর ডিসেম্বরে ২৪ তারিখ পুনরায় টেট অনুষ্ঠিত হয়। আগের বছরের টেট কেন্দ্রে যে বিশেষ নিরাপত্তা রাখা হয়েছিল তার পরেও পর্ষদের তরফে অনেক গাফিলতি ধরা পড়ে তাই এই বছর খুব কঠোর ও নিয়ম শৃঙ্খলার মধ্য দিয়ে একাধিক নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছিল।

Advertisement

Primary TET Exam New Recruitment Update.

সেই সাথে ছিল পরীক্ষাকেন্দ্রে সিসি টিভি, বায়োমেট্রিক ও ফেস রিকোগনেশনের ব্যাবস্থা ছিল। কোনো পরীক্ষার্থীকে নিজের ছবি, আধার কার্ড, অ্যাডমিট কার্ড ছাড়া অন্য কোনো জিনিস নিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশ নিষিদ্ধ ছিল। এমনকি জলের বোতল, বিবাহিত মহিলাদের কোনো গয়নাও সাথে রাখা যাবে না এমনই বিধি নিষেধ আরোপ করা হয়েছিল। করে তবেই প্রত্যেক পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষাকেন্দ্রে (Primary TET Exam) প্রবেশ করানো হয়েছিল।

Advertisement

এত কড়া নিরাপত্তার মধ্যেও উঠে আসছে বিস্ফোরক তথ্য আর সেটা হলো পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস হওয়ার মতন অভিযোগ। গত ২৪ ডিসেম্বর বেলা ১২টা থেকে শুরু হয় টেট পরীক্ষা (Primary TET Exam). পরীক্ষা শুরুর ১ ঘন্টার মধ্যে প্রশ্ন ফাঁস হওয়ার মতন অভিযোগ উঠেছে। এর ফলে পরীক্ষার্থীদের মধ্যে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে। তাদের এত খাটনি এত কষ্ট করে নেওয়া প্রস্তুতি কি সবই বিফলে যাবে সেই নিয়ে আশঙ্কা তৈরি গিয়েছেন আদেও এই টেট পরীক্ষার নিয়োগ হবে কিনা, তা নিয়ে কিছুটা হতাশায় ভুগছে টেট পরীক্ষার্থীরা।

এর আগেও আগের বছরে হওয়া টেট পরীক্ষার (Primary TET Exam) এখনো নিয়োগ হয়নি যদিও সেই পরীক্ষা নিয়ে কোনো রকম কথা ওঠেনি তবুও নিয়োগ কেন হয়নি তা জানা যায়নি।অথচ এবছরের টেট প্রশ্ন নিয়ে এতটা জলঘোলা হয়েছে সেখানে নিয়োগ নিয়ে একটা প্রশ্ন তো থাকছেই টেট পরীক্ষার্থীদের মতামত। এদিকে টেট প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে পর্ষদ কি জানাচ্ছেন সেটা দেখে নেওয়া যাক।

পর্ষদের (WBBPE) ডেপুটি সেক্রেটারি পার্থ কর্মকারকে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানিয়েছেন এ বছর ৮৮.২২ শতাংশ পরীক্ষার্থী টেট পরীক্ষায় বসেছিল। গত বছরের তুলনায় অনেকটাই কম ছিল এবছরের টেট পরীক্ষার্থীদের সংখ্যা। তিনি আরও বলেন প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে বলে তিনি এখনো কিছু প্রমাণ পায়নি। আর টেট (Primary TET Exam) প্রশ্ন ফাঁস কথা উঠে আসলেও তার সাথে নিয়োগ না হওয়ার কোনো সম্পর্ক নেই।

Primary Teacher Recruitment (প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ)

তিনি আরোও বলেন যে, খুব শীঘ্রই টেট প্রশ্নের মডেল উত্তর পত্র দিয়ে দেওয়া হবে। যাতে পরীক্ষার্থীরা মিলিয়ে দেখতে পারে কতটা ঠিক তারা উত্তর দিয়েছেন। এরপরই নির্দিষ্ট সময়ে ফলাফল প্রকাশ করা হবে। আর ফল প্রকাশ খুব দ্রুততার সাথেই সম্পন্ন করা হবে। তবে নিয়োগ (Primary TET Exam) কবে কিভাবে হবে সেই নিয়ে পর্ষদ কোনো কথা বলেননি। নিয়োগের আগে বিজ্ঞপ্তি বের হবে অর্থাৎ নিয়োগ নিয়ে একটা ধোঁয়াশা রয়েই গেল ঠিক আগের বারের মতন।

2016 সালে চাকরি পাওয়া শিক্ষকদের নোটিশ দেওয়া শুরু। কি লেখা আছে?

ঠিক আগের বারের টেট পাশ করা পরীক্ষার্থীরা এখনো নিয়োগের (Primary TET Exam) আশায় বসে রয়েছেন। এবারেও কি সেই একই জিনিস পুনর্বার পরিলক্ষিত হবে। এমনই দ্বিধাদ্বন্দ্বের মধ্যে রয়েছেন টেট পরীক্ষার্থীরা। নিয়োগের জট কবে খুলবে আর কবেই নিয়োগ প্রক্রিয়া শুরু হবে সেই দিকেই তাকিয়ে লাখ লাখ টেট পরীক্ষার্থীরা। এবারে দেখার অপেক্ষা যে পশ্চিমবঙ্গ প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে Primary TET Exam নিয়ে কি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।
Written by Shampa Debnath.

প্রাইমারী টেট পরীক্ষায় মানতে হবে 11 টি নিয়ম। অন্যথায় খাতা বাতিল।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button