Govt Scheme – পশ্চিমবঙ্গের এই প্রকল্পে 5000 টাকা ঢুকবে একাউন্টে, বড় সুখবর দিলো সরকার।

রাজ্য সরকার খেটে খাওয়া মানুষদের জন্য নিত্য নতুন প্রকল্প (Govt Scheme) নিয়ে এসছেন। আর এই প্রকল্পের মাধ্যমে বাংলার মানুষ কিছু আর্থিক অনুদান পেয়ে থাকেন। প্রত্যেকের ব্যাংকে ঠিক সময় টাকা ঢুকে যায়। আর এই আর্থিক অনুদান বাংলার মানুষকে অনেকটাই উপকৃত করেছে। তেমনি এই ডিসেম্বরে কিছুজনের একাউন্টে ৫০০০ টাকা ঢুকতে চলেছে। এই খবর শুনে রীতিমত অনেকেই অবাক হতে পারেন। কিন্ত জানিয়ে রাখা ভালো বাংলার সকল মানুষের ব্যাংক একাউন্টে এই টাকা ঢুকবেনা।

Advertisement

West Bengal New Govt Scheme.

যে সমস্ত ব্যাক্তির কৃষিজমি রয়েছে এবং যারা কৃষিকাজ করেন তারা এই প্রকল্প অর্থাৎ কৃষি বন্ধু প্রকল্পের অধীনে নাম অন্তর্ভুক্ত থাকলেই তার একাউন্টে এই ডিসেম্বরেই ৫০০০ টাকা ঢুকবে। ২০১৯ সালে প্রথম বাংলার কৃষকদের দারিদ্র্যতা দেখে তাদের জন্য আর্থিক সহায়তা করার জন্য কৃষক যোজনা প্রকল্পের (Govt Scheme) চালু করেন। বাংলায় এমন অনেক কৃষক রয়েছেন যাদের কৃষি জমি থাকলেও চাষ করার মতন আর্থিক সামর্থ নেই।

Advertisement

সেই সব কৃষকদের কথা চিন্তা করে এই প্রকল্পের ব্যাবস্থা করা হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই কৃষক পরিবারে খুশির বাঁধ ভেঙেছে। সাধারণত দুইবারে এই প্রকল্পের (Govt Scheme) টাকা দেওয়া হয়। দুইবার ১০,০০০ টাকা দেওয়া হয়। একবার টাকা দেওয়া হয় খারিফ শস্য চাষের জন্য যেটা বর্ষাকালে চাষ করা হয়। সেটার টাকা পেয়ে গেছেন কৃষকরা। ইতিমধ্যেই অক্টোবর আর নভেম্বর মাস পূজার ছুটিতে কাটিয়েছেন সবাই।

পূজার মধ্যে এমনই অনেক খরচ হয়েছে। সেই সাথে আবারও ডিসেম্বরে কৃষক বন্ধু প্রকল্পে (Krishak Bandhu Govt Scheme) টাকা দেওয়া হবে কিনা সেই নিয়ে দ্বন্দ নিয়ে ছিলেন কৃষকরা। কিন্ত সেই দ্বন্দ্বের অবসান হতে চলেছে। ডিসেম্বরেই পেয়ে যাবেন আরও ৫০০০ টাকা। শীতকাল পড়েই গেছে। আর শীতকাল মানেই অনেক রং বেরঙের সবজি চাষ। এই রবি শস্যের চাষের জন্য কৃষকদের অনেক টাকা খরচ করতে হয়। তাই রবি শস্যের জন্য ৫০০০ টাকা দেওয়া হয়।

আগের বছর এই ডিসেম্বরেই রবি শস্যের টাকা দেওয়া হয়েছিল। সেই অনুযায়ী বাংলার কৃষকরা আশা করেছিলেন। এই আশা পূরণ হতে চলেছে। তবে এই প্রকল্পে (Govt Scheme) নাম নথিভূক্ত যাদের আছে তাদের টাকা ঢুকেছে কিনা কিভাবে চেক করবেন জেনে নিন। তাহলে আপনার সুবিধা হবে। স্ট্যাটাস চেক করবেন কিভাবে – কৃষক বন্ধু প্রকল্পের স্ট্যাটাস চেক করার জন্য প্রথমে www.krishakbandhu.net পোর্টালে গিয়ে Enrolled Farmers Information যেতে হবে।

এরপর সিলেক্ট অপশন এ গিয়ে আধার কার্ড, মোবাইল নম্বর অথবা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট নম্বরের মধ্যে যে কোনো একটি নির্বাচন করুন। এখন যে আইডি টি বাছলেন তার নম্বর টি সঠিক স্থানে বসিয়ে এবং Captcha Code লিখে সার্চ এ ক্লিক করুন। এরপর আপনার স্ট্যাটাস টি যে পেজে রয়েছে তা আপনি দেখতে পারবেন। যদি কৃষক বন্ধু প্রকল্পে (Govt Scheme) আপনার দেওয়া তথ্য ও নথি সব ঠিক আপডেট থেকে অবশ্যই টাকা পাবেন।

Holiday List (পশ্চিমবঙ্গে ছুটির তালিকা)

আর যদি এখনো আধার লিঙ্ক না করে থাকেন আপনার ব্যাংক একাউন্টের সাথে বা ডকুমেন্টস সংক্রান্ত কোনো সমস্যা থাকলে তাহলেও সেটি স্ট্যাটাসে দেখা যাবে। তখন সেই অনুযায়ী সমস্যাটির সমাধান করলে তারপর প্রকল্পের টাকা একাউন্টে ঢুকবে। আর আপনি যদি এখনো এই প্রকল্পে (Govt Scheme) নাম নথিভূক্ত করেননি তাহলে নিজের সিঙ্গেল ব্যাংক একাউন্ট আর আধার কার্ড, ভোটার কার্ড ও ছবি নিয়ে কাছাকাছি কৃষি অধিকর্তার সাথে যোগাযোগ করুন।

আধার কার্ড নিয়ে ফের নয়া আপডেট, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব করে ফেলুন।

কিন্তু এই নতুন Govt Scheme বা সরকারি প্রকল্পের মাধ্যমে শুধুমাত্র রাজ্যের কৃষকেরা পাবেন। সকল গ্রাহকেরা এই জিনিস পাবে না। আর এই সম্পর্কে আপনারা আরও কিছু জানতে চাইলে স্থানীয় প্রশাসনের সাহায্য নিতে পারবেন। বাকি কাজ কি করতে হবে তারাই বুঝিয়ে দেবেন। এমন আরও গুরুত্বপূর্ণ খবরের রোজকার নিত্য নতুন খবর জানতে এই পেজ ফলো করুন।
Written by Shampa Debnath.

জেলায় জেলায় প্রাইমারি স্কুলে কর্মী নিয়োগ। বেতন 22000 টাকা, প্রশিক্ষণ

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button